বই ডাউনলোড: সালাতের পর রাসূল সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম যে সব দোয়া পড়তেন

সালাতের পর রাসূল সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম যে সব দোয়া পড়তেন

 মু ফ তী কা জী মু হা ম্মা দ ই ব রা হী ম

বইটির সংক্ষিপ্ত পরিচিতি:

  • নাম: সালাতের পর রাসূল সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম যে সব দোয়া পড়তেন
  • লেখক: প্রফেসর  মুফতী কাজী মুহাম্মাদ ইবরাহীম, প্রধান মুহাদ্দিস, জামেয়া কাসেমিয়া, নরসিংদী ও খতিব, বায়তুল আমান জামে মসজিদ, মতিঝিল সরকারি কলোনি (আল-হেলাল জোন) ঢাকা-১০০০,।
  • পৃষ্ঠা সংখ্যা: ৩৮
  • প্রকাশনায়: মানারাহ পাবলিকেশন্স, ঢাকা
  • আপলোডার: ইসলামের পথ
  • স্ক্যান কৃত ছোট এ বইটি ডাউনলোড করুন এখান থেকে (পিডিএফ-১.৩৯ এমবি মাত্র)
  • বিশেষ দ্রষ্টব্য: আপনার প্রতি আহবান বইটি পছন্দ হলে বাজার থেকে কিনুন এবং সাধ্যমত মুসলিমদের মাঝে বিতরণ করুন। দাওয়াতী কাজে অংশগ্রহণ করুন। বই কেনার সময় মানারাহ পাবলিকেশন দেখে কিনবেন। ধন্যবাদ।

    4 thoughts on “বই ডাউনলোড: সালাতের পর রাসূল সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম যে সব দোয়া পড়তেন

    1. িপ্রয় ভাই বাংলা আরবী ব্যকরণ
      বই গুলি অনুগ্রহ করে তাড়াতাড়ি দিবেন

    2. অনেক জিনিস জানতে পারছি এর মাধ্যমে ।ধন্যবাদ সবাইকে

    3. বিদ‘আত নিয়ে লেখালেখি করে মুসলমানদের অনেক উপকার করছেন, কিন্তু এগুলো লিখছেন কিছু মুফতি বা আল্লামা বা ডঃ, – রাসূল সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম তো নন ই, এমনকি কোন সাহাবী (রা)ও এই উপাধি নিজের নামের সাথে ব্যাবহার করেন নাই, – এগুলো কি বিদ‘আত নয়? ফতুয়া দিয়ে আলেম এ ছু হওয়া যায়, কিন্তু আল্লাহকে রাজী খুশি করানুর জন্য নিজের অন্তর পবিত্র করতে হয়, – এইসব বিদ‘আতই টাইটেল নিজের নামে লাগিয়ে অন্তর পবিত্র করা যায় না

      • প্রথম কথা হল, বিদআত কাকে বলে সে ব্যাপারটা আগে ক্লিয়ার হতে হবে। ইবাদতের মধ্যে যদি কেউ নতুন কিছু সংযোগ করে বা নতুন এমন বিষয়ে আমল করে যা রাসূল সা. বা খোলাফায়ে রাশেদার যুগে ছিল না তবে তা বিদআত হিসেবে পরিগণিত হবে।
        কিন্তু নামের শুরুতে যে সকল টাইটেল ব্যবহার করা হয় তার উদ্দেশ্য হল, পরিচয়। এটি ইবাদত হিসেবে করা হয় না। রাসূল সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম বা তার সাহাবীদের যুুগে ডক্টর, মুহাদ্দিস, মুফাসসির, মুফতী ইত্যাদি বিষয়ে কোন আলাদা একাডেমিক সিস্টেম ছিল না। কিন্তু পরবর্তীতে বিশেষজ্ঞ তৈরির প্রয়োজনে এগুলো চালু করা হয়েছে। তাই তাকে বিদআত আখ্যা দেয়া ঠিক নয়।
        আলেমদের শানে আমাদের আরও সর্তক ও ভদ্রভাবে মন্তব্য করা বলা উচিৎ। জাযাকাল্লাহু খাইরান।

    আপনার মতামত বা প্রশ্ন লিখুন।

    Fill in your details below or click an icon to log in:

    WordPress.com Logo

    You are commenting using your WordPress.com account. Log Out / Change )

    Twitter picture

    You are commenting using your Twitter account. Log Out / Change )

    Facebook photo

    You are commenting using your Facebook account. Log Out / Change )

    Google+ photo

    You are commenting using your Google+ account. Log Out / Change )

    Connecting to %s